রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:০৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
আলামিয়া- নুরুল ইসলাম স্মৃতি ফাউন্ডেশন এর আয়োজনে পবিত্র কছিদা বুরদা শরীফ খতমে খাজেগান, খতমে শেফা শরীফও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত বিদেশে বসে ষড়যন্ত্র করে শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করা যাবে না : হানিফ ইচ্ছে পূরন রক্তদান সংস্থা’র উদ্যােগে ফ্রি ব্লাড গ্রুপিং ক্যাম্পেইন বিশ্ব ব্যক্তিগত গাড়িমুক্ত দিবস মানবিক শহর গড়তে প্রয়োজন হাঁটা ও সাইকেলবান্ধব পরিবেশ যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে অনুষ্টিত হল বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ২০২০ “ দে‌বিদ্বার উপ‌জেলা স্টুডেন্টস অ্যা‌সো‌সি‌য়েশন অব তিতুমীর ক‌লেজ (ডুসা‌ট)’র ক‌মি‌টি ঘোষনা মুজিবের বাংলাদেশে মাওলানা আহমদ শফী দ্বীনের জন্য আমৃত্যু কাজ করেছেনঃ এনডিপি অসহনীয় লোডশেডিংয়ে ডেমড়ায় ভ্যাপসা গরমে অতিষ্ঠ জনজিবন শাহ আহমেদ শফি’র শেষ বিদায় জানাতে হাটহাজারীতে মানুষের ঢল
করোনার ভয়াবহ পরিস্থিতিতেও ঝাউদিয়া শাহী মসজিদে দর্শনার্থীর উপচে পড়া ভিড়

করোনার ভয়াবহ পরিস্থিতিতেও ঝাউদিয়া শাহী মসজিদে দর্শনার্থীর উপচে পড়া ভিড়

করোনার ভয়াবহ পরিস্থিতিতেও ঝাউদিয়া শাহী মসজিদে দর্শনার্থীর উপচে পড়া ভিড়

এম,এইচ,আল-মামুন : কুষ্টিয়ার ইবিথানাধীন ঝাউদিয়া ইউনিয়নে ঝাউদিয়া গ্রামে অবস্থিত ঐতিহাসিক ঝাউদিয়া শাহী মসজিদ। মোঘল আমলে নির্মাণ হওয়া মসজিদটির কারুকার্য শৈলী সকলকে আকৃষ্ট করে। তবে কারো কারো মনে ধারণা আছে যে এটি গায়েবি (এক রাতে তৈরি) মসজিদ আর সে কারণেই বহু বছর আগে থেকেই মসজিদে প্রতি শুক্রবার বিভিন্ন জায়গা থেকে রোগবালাই বা তাদের বিভিন্ন সমস্যার সমাধান হবে ভেবে মান্নত নিয়ে আসে। যদিও ধর্মীয় আলেমদের মতে মসজিদ কোন রোগ সারাতে পারে না। যাইহোক, বর্তমান বিশ্বের মহামারী নাম করোনাভাইরাস এখানে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাসহ বাংলাদেশ স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এর ভাষ্যমতে এর থেকে বাঁচতে হলে ঘরে থাকতে হবে ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলাফেরা করতে হবে। যার কারণে দেশে দীর্ঘদিন অঘোষিত লকডাউন চলেছে। কিন্তু অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে সীমিত আকারে লকডাউন শিথিল করে বাংলাদেশ সরকার।আর এরই সুযোগ নিয়ে হাজার হাজার মানুষ আজ শুক্রবার ঝাউদিয়া শাহী মসজিদে জমায়েত হয় । সকাল থেকেই জেলা বিভিন্ন জায়গা সহ পার্শ্ববর্তী বিভিন্ন জেলা থেকে মান্নত কারীরা ও দর্শনার্থীরা ঝাউদিয়া শাহী মসজিদ ভিড় জমায়। যেটি বর্তমান পরিস্থিতিতে সকলের জন্য হুমকিস্বরূপ। যেখানে কুষ্টিয়া জেলাতে এখন পর্যন্ত করোনাই আক্রান্ত প্রায় একশ জন। আগত দর্শনার্থীদের মধ্যে কোন সচেতনতাই দেখা যাচ্ছে না, মানা হচ্ছে না সামাজিক দূরত্ব এবং কোন স্বাস্থ্যবিধি। জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল মুখে মাক্স না পড়ে বাহিরে বের হলেই ভ্রাম্যমান আদালতে করা হবে জরিমানা। কিন্তু মসজিদে আসা দর্শনার্থীদের গুটিকয়েক জনগণ বাদে বেশিরভাগ মানুষের মুখে ছিল না মাস্ক। এ মতো পরিস্থিতিতে দর্শনার্থী ও মন্নতকারী আসার কারণে কিছু সংখ্যক লোক এবং উর্দ্ধতন কিছু ব্যক্তি লাভবান হলেও হুমকিতে পড়ছে এলাকার মানুষ সহ সকলে।

এমতাবস্থায় উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষ এবং জেলা প্রশাসকের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি যাতে করে,করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত বহিরাগত দর্শনার্থীরা যেন
এখানে না আসুক।

অনেকের মনে প্রশ্ন হয়ে উঠেছে,যেখানে সরকার করোনাভাইরাস থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ একের পর এক নিয়েই যাচ্ছে সেখানে ঝাউদিয়ার শাহী মসজিদের এই অবস্থা।

ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সর্বসত্ব ® দেশের সময়.কম কর্তৃক সংরক্ষিত।